• Facebook
  • Yahoo
  • Google
  • Live
by on April 9, 2019
211 views

"এমাইলিওডোসিস" নামক এক কঠিন রিদরোগে আক্রান্ত হয়ে ক্রেইগ লুইস ২০১২ সালের মার্চ মাসে টেক্সস হার্ট ইন্স্যুইটে এ ভর্তি হন। এটাএমন এক রোগ যেটা মানুষের অভ্যন্তরীন অঙ্গগুলোকে  আঠালো প্রোটিন দিয়ে সংক্রামিত করে ফেলে যেটা  হার্ট, কিডনি এবং লিভার খুব দ্রুতই অকেজো করে ফেলে। সঠিক সময়ে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ  না নিলে খুবই দ্রুত   মানুষ মারা যেতে পারে, তাই ক্রেইগ লুইসকে বাঁচাতে  অবিলম্বে চিকিৎসার ব্যবস্থা করেন ডাক্তার। 

সৌভাগ্যকর্মে ডক্টর বিলি কোহেন এবং ডক্টর বিড ফ্রাজিয়র "ধারাবাহিক প্রবাহ"  নামক একটি যন্ত্র  নিয়ে আসেন যা কিনা কোনো হার্ট পালস ছাড়া রক্ত শরীরে ছড়িয়ে দিতে সক্ষম। লুইসের হৃদয়কে আলাদা করে এবং তারপর ডিভাইসটিকে সংযুক্ত করার পর রোগী খুব ভালোভাবেই একই দিনেই ডাক্তারদের সাথে কথা বলে এবং ক্রমান্বয়ে আরো  সুস্থ হয়ে উঠেন। লেফট ভেন্ট্রিকুলার অ্যাসিস্ট ডিভাইস  অথবা   LVADs  নামে পরিচিত সবচেয়ে বিশিষ্ট ডিভাইস। 

ডঃ কোহেন একজন বিশেষজ্ঞ সার্জন এবং একজন আবিষ্কারক ও বিজ্ঞানী যিনি মানব জীবনের প্রতিস্থাপন বা মেরামত করার জন্য তার জীবনের একটি বড় অংশ ব্যয়  করেছেন। বাম ভেন্ট্রিকুলার অ্যাসিস্ট ডিভাইস নামে পরিচিত সবচেয়ে বিশিষ্ট একটি যন্ত্র , এছাড়াও LVADs বলা হয় এটিকে।
 
ডঃ কোহেন  এবং ডঃ বুদ্ ফ্রাজিএ LVADs  এর প্রযুক্তি ব্যবহার করে হৃদয়ের ডান ও বাম ভেন্ট্রিকেলগুলির কাজগুলি নকল করে। তারা তাদের এই পরক্ষামূলক কাজগুলো করে থাকে  (অনুপযুক্তভাবে) ৭০টি বাছুরের উপর, সব বাছুরের একজি ফ্লাট লাইন দেয়া হয়, ছিলোনা এদের হৃদস্পন্দন অথবা পালস, তবুও এই যন্ত্রর মাদ্ধমে খুব দ্রুত বাছুরদের স্বাভাবিক অবস্থানে ফিরিয়েআনা হয়। 

কিন্তু ক্রেইগ লুইস একমাত্র মানব যার উপর এই যন্ত্রটি  সাথে স্থাপন করা হয় এবং  পুরো ৪৮ ঘন্টার ও কম সময় লেগেছিলো এই প্রক্রিয়া সম্পন্ন করতে। তার কিডনি এবং লিভার অতটা ভাগ্যবান ছিলোনা যার কারণে সে আসতে আসতে ফেকাসে হতে থাকে এবং পরিবারের অনুমিতিতে তারা যন্ত্রটি বিচ্ছিন্ন করেন।

Source: Web
 

Posted in: Health
1 person likes this.